বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে গুরুত্বপূর্ণ পেশা সমূহ

  • Post category:Careers
  • Post last modified:13/03/2021

বাংলাদেশে স্বাস্থ্যসেবা এবং প্রকৌশলের ক্ষেত্রের চাকরিগুলোতে অনেক বেশি উপার্জন করার সুযোগ থাকায় পেশা হিসেবে ডাক্তার এবং ইঞ্জিনিয়ারদের কদর সব সময়ই অনেক বেশি হয়ে আসছে।তাছাড়া ও আইন পেশা, ব্যাংকিং পেশা, সরকারি চাকরি, ও শিক্ষকতার বেশ কদর রয়েছে। এই পেশা গুলোকে আমরা বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে প্রচলিত পেশা হিসেবে ধরে নিতে পারি।

Careers in Bangladesh

প্রচলিত পেশা:

ডাক্তার: আমাদের দেশের সবচেয়ে আকাঙ্ক্ষিত পেশাগুলোর একটি ডাক্তারি। বাংলাদেশ স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের নীতিমালা অনুযায়ী ব্যাচেলর অফ মেডিসিন অ্যান্ড ব্যাচেলর অফ সার্জারি (M.B.B.S.) ডিগ্রিধারীরা ডাক্তার পদবী ব্যবহার করতে পারেন। এ ডিগ্রি ডাক্তারি পেশার সূচনা মাত্র। এমবিবিএসের পরে ডাক্তাররা চিকিৎসা বিজ্ঞানের যে কোন বিশেষ দিকে উচ্চতর ডিগ্রি নিয়ে থাকেন। যেমন: মেডিসিন, নিউরোলজি, গাইনিকোলজি, অনকোলজি, গ্যাস্ট্রোলজি, কার্ডিওলজি ইত্যাদি।
বাংলাদেশ মেডিকেল এন্ড ডেন্টাল কাউন্সিল (বিএমডিসি) স্বীকৃত মোট ৩৬টি সরকারি ও ৭০টি বেসরকারি মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস ডিগ্রি দেয়া হয়। সরকারি মেডিকেল কলেজে পড়ার সুযোগ পেতে হলে প্রতিযোগিতাপূর্ণ পরীক্ষার মধ্য দিয়ে ভর্তি হকে হবে। অন্যদিকে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে সাধারণত শিক্ষার খরচ প্রচুর।

ইঞ্জিনিয়ারিং ও স্থাপত্য: পছন্দের পেশা হিসেবে ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়টির জনপ্রিয়তা নতুন কিছু নয়। দীর্ঘ দিন ধরেই ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে আগ্রহী মানুষের পরিমাণ বেড়েই চলেছে। এখনকার তরুণদের কাছেও ইঞ্জিনিয়ারিং বা প্রকৌশল একইরকম আকর্ষণীয় পেশা। ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের পাশাপাশি বর্তমানে স্থাপত্য বা আর্কিটেক্টও তরুণদের পছন্দের তালিকার শুরুর দিকেই স্থান করে নিয়েছে। বর্তমানে শিল্পনির্ভরতা বৃদ্ধির কারণে বাড়ছে শিল্পকারখানা। আর এর ফলে দরকার হচ্ছে বিপুল পরিমাণ জনশক্তির। এর মধ্যে অন্যতম একটি হলো ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ার। শিল্পকারখানার বাইরেও এই পেশায় দক্ষ লোকদের কাজের সুযোগ রয়েছে। এ ছাড়াও মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং পেশার চাহিদা অন্য সময়ের তুলনায় এখন অনেক বেড়েছে। বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রে প্রতি মাসে প্রায় ১৮ হাজার মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারের পদ ফাঁকা থাকে যোগ্য কর্মী না পাওয়ার কারণে।

ব্যাংকিং অ্যান্ড ফিন্যান্স ম্যানেজার: বর্তমানে চাকরির বাজারে ভালো অবস্থানে রয়েছে ব্যাংকিং সেক্টর। সদ্য শিক্ষাজীবন শেষ করা তরুণ-তরুণীদের পছন্দের প্রথম কাতারে রয়েছে এই পেশা। কারণ এই পেশাটিকে সবাই চিন্তামুক্ত একটি পেশা হিসেবেই মনে করেন এবং এর ভবিষ্যৎও অনেক ভালো। ব্যাংকিং খাতের সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো এই খাতে ক্যারিয়ারকে অনেক বেশি নিরাপদ মনে করা হয়। ব্যাংকিং সেক্টরে অনেক প্রাইভেট ব্যাংক প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় এই পেশায় তরুণদের সুযোগ অনেক বাড়ছে। ব্যাংকিং সেক্টরে কাজের ভালো পরিবেশের সাথে রয়েছে ভালো বেতনকাঠামো। তাই এই পেশার জন্য নিজেকে গড়ে তুলতে বর্তমানে আগ্রহী হয়ে উঠছে তরুণেরা। একটি প্রতিষ্ঠানের আর্থিক অবস্থা তদারকি, বিনিয়োগ কিংবা অর্থসংক্রান্ত অন্যান্য বিষয় নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানকে আর্থিকভাবে লাভবান রাখার কাজটি করে থাকেন ফিন্যান্সিয়াল ম্যানেজার। বর্তমান বিশ্বে বিভিন্ন আর্থিক ও বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানে এই পদে দক্ষ কর্মীদের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। তবে চাহিদা সত্ত্বেও এ ক্ষেত্রে দক্ষ কর্মীর সঙ্কট প্রবল।

অপ্রচলিত পেশা:

ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, ব্যারিস্টার এসব ছাড়াও ইদানীং কিছু ক্যারিয়ার পথ তৈরি হয়েছে, যাতে অনেকেই সফল হচ্ছে। যেমন ফটোগ্রাফি, ইন্টেরিয়র ডিজাইনিং, ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট, মেক-আপ আর্টিস্ট, স্টাইলিস্ট, ক্যারিয়ার গ্রুমিং, কর্পোরেট ট্রেইনার, পাবলিক স্পিকার, ফ্যাশন ডিজাইনিং, হোটেল ম্যানেজমেন্ট, ফিল্ম মেকিং, ব্লগিং ইত্যাদি। এসব বিষয়ে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষার খুব একটা সুযোগ বাংলাদেশে নেই, তবে এসব বিষয়ে তাত্ত্বিক শিক্ষার চেয়েও ব্যবহারিক বা প্র্যাকটিকালি শেখার প্রয়োজন খুব বেশি হয়। এগুলো বাংলাদেশে খুব জনপ্রিয় পেশা হয়ে উঠছে দিন দিন।

বিকল্প পেশা :

শিক্ষাজীবনে আমাদেরকে খুব কমই জানানো হয় যে ক্যারিয়ার মাত্রই চাকরি নয়। উদ্যোক্তা হওয়া, ফ্রিল্যান্সার, স্বাধীন-কন্সাল্টেন্ট হওয়া এরকম আরও অনেক ক্যারিয়ার পথ আছে। উদ্যোক্তা হলে নিজের কাজের স্বাধীনতা যেমন থাকে, তেমনি অনেক মানুষের কর্মসংস্থান তৈরি করা যায়। বাংলাদেশের মত দেশ, যেখানে ৪৭% শিক্ষিত জনগোষ্ঠী বেকার, সেখানে উদ্যোক্তা হওয়ার চেষ্টা করাটা সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত হবে। বাংলাদেশে তরুণদের প্রতিষ্ঠা করা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে শ’ থেকে হাজার খানেক শিক্ষিত ছেলেমেয়ে কাজ করার সুযোগ পায়।

বিদেশে চাকরির ক্ষেত্রে করণীয়

অনেকের ইচ্ছে আছে দেশের বাইরে গিয়ে নিজের ক্যারিয়ার গড়ার। বিদেশে চাকরি করলে অভিজ্ঞতা অর্জনের পাশাপাশি অনেক মূল্যবান দক্ষতা অর্জন করা যায়, বিভিন্ন সংস্কৃতির মানুষের সাথে পরিচিত হওয়া যায় সেইসাথে ঘোরাঘুরি করার সুযোগ তো রয়েছেই। তবে বিদেশে চাকরি করার আগে অনেক জিনিস বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নিতে হয়। Overseas job for Bangladeshi আজকের নিবন্ধে বিদেশে যাওয়ার আগে […]

বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে অনলাইন জবস

আপনি যদি অনলাইনে কোনো চাকরি বা ফ্রীলান্স কাজ করার চেষ্টা চালাচ্ছেন ,তাহলে এই পোস্টি আপনার সেই স্বপ্ন এক ধাপ এগিয়ে দিবে ! আমরা এই আর্টিকেলে আলোচনা করব কিভাবে অনলাইন জব করে আপনি নিজে স্বনির্ভর হতে পারবেন।বা সোজা কোথায় বলতে হলে পার্ট টাইম ফ্রীলান্স কাজ করে কিভাবে কিছু এক্সট্রা পয়সা পকেটে আনতে পারেন সেই মাধ্যম গুলি […]

বাংলাদেশের উচ্চ বেতনের চাকরি সমূহ

বাংলাদেশে স্বাস্থ্যসেবা এবং প্রকৌশল ক্ষেত্রের চাকরিগুলোতে অনেক বেশি উপার্জন করার সুযোগ থাকায় পেশা হিসেবে ডাক্তার এবং ইঞ্জিনিয়ারদের কদর সব সময়ই অনেক বেশি হয়ে আসছে। এর পর রয়েছে প্রযুক্তি খাতের চাকরি। আধুনিক পৃথিবীতে বেশি বেতনের চাকরি মানেই প্রযুক্তি খাতের কদর। গত দশকে এই ধরনের চাকরির ক্ষেত্র যেমন বেড়েছে, তেমনি বেড়েছে প্রত্যাশীদের আগ্রহ। এ বছরও এই ধারা […]

ক্যারিয়ার গড়ার টিপস

আমাদের সবারই কর্মক্ষেত্রে সফল হবার ইচ্ছে বা স্বপ্ন থাকে। প্রত্যাশিত চাকরি পাওয়ার পর সেই চাকরি থেকে সফল ক্যারিয়ারের দিকে হাঁটতে সবাই চায়। আর সেই স্বপ্ন পূর্ণ করে চাইলে আমাকে অবশ্যই কিছু বিষয় মাথায় রাখতে হবে এবং সেগুলো মেনে চলতে হবে। CareerBuilder আজ আমরা সফল ক্যারিয়ার গড়ার কিছু গুরুত্বপূর্ণ টিপস নিয়ে কথা বলব যে বিষয়গুলো মেনে […]

বাংলাদেশের প্রেক্ষিতে গুরুত্বপূর্ণ পেশা সমূহ
Careers in Bangladesh